বাংলাদেশে ফুড ডেলিভারি ব্যবসায় আগ্রহী আলিবাবা

বিজয় বাংলা ডেস্ক
প্রকাশিত জানুয়ারি ২৫, ২০২১
বাংলাদেশে ফুড ডেলিভারি ব্যবসায় আগ্রহী আলিবাবা

বাংলাদেশে ফুড ডেলিভারি ব্যবসায় আগ্রহ প্রকাশ করেছে চীনা প্রতিষ্ঠান আলিবাবা। বাংলাদেশের অনলাইনে খাবার অর্ডার ও ডেলিভারির প্লাটফর্ম হাংরিনাকি কিনতে ইতোমধ্যে প্রাথমিক আলোচনা করেছে আলিবাবার প্রতিষ্ঠান দারাজ। তবে আলোচনা একেবারেই প্রাথমিক পর্যায়ের দাবি হাংরিনাকির। আর দারাজ বলছে চূড়ান্ত কিছু হলে তারা আনুষ্ঠানিকভাবে জানাবে।

হাংরিনাকির দেশে আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু ২০১৩ সালের অক্টোবরে। চার তরুণ ইব্রাহিম বিন মহিউদ্দিন, তৌসিফ আহমেদ, সাজিদ রহমান ও আহমাদ এডি এর উদ্যোক্তা। চলতি বছরের শুরুতে মারা যান তৌসিফ আহমেদ, প্রতিষ্ঠান ছেড়ে যান সাজিদ রহমান। এখন সিইও আহমাদ এডি এবং ডেপুটি সিইও ইব্রাহিম বিন মহিউদ্দিন।

ইব্রাহিম বিন মহিউদ্দিন বলেন, একেবারেই প্রাথমিক আলোচনা। চূড়ান্ত কিছু হয়েছে কিনা, পুরো কিনে নিচ্ছে কিনা এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, চূড়ান্ত কোনো কিছুই হয়নি। আসলে কীভাবে কী হবে তারও কোনো কিছুই ঠিক হয়নি। এটা চূড়ান্ত হতে পারে আবার নাও হতে পারে।

হাংরিনাকি দেশে নিবন্ধিত কোম্পানি এবং শতভাগ দেশীয় কোম্পানি উল্লেখ করে তিনি বলেন, দেশের একটি প্রতিষ্ঠান বড় হোক এটা তো সবাই চাই।

দারাজের জনসংযোগ ব্যবস্থাপক সায়ন্তনী তৃষা দারাজের হাংরিনাকি কিনে নেওয়ার প্রশ্নে বলেন, নো কমেন্টস। সময় হলে সবাইকে জানানো হবে। চূড়ান্ত কিছু হলে তখন আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হবে।

২০১৮ সালের মাঝামাঝিতে বাংলাদেশে দারাজকে কিনে নেয় আলিবাবা। ওই সময় শুধু দারাজ নয় দেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল ব্যাংকিং সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান বিকাশের ২০ শতাংশ শেয়ারও কিনে নেয় চীনের এ জায়ান্ট কোম্পানি। দেশে ফুড ডেলিভারির তুমুল প্রতিযোগিতার মধ্যে চলতি বছরের জুনে ব্যবসা গুটিয়ে নেয় উবার ইটস। আর কার্যক্রম চলিয়ে যাচ্ছে ফুডপান্ডা, হাংরিনাকি, পাঠাও ফুড, সহজ ফুড। এরমধ্যে উবার ইটস বন্ধ হওয়ার মাসেই বাজারে আসে ই-ফুড। ব্যাপক ছাড়, সুপরিচিত রেস্টুরেন্ট যুক্ত করা ও দ্রুত ডেলিভারির কারণে অল্প সময়েই জনপ্রিয়তা পায় ই-ফুড। কোনো কোনো প্রতিষ্ঠানকে ব্যাপক প্রতিযোগিতার মুখে ফেলে দেয় ই-ফুড।খাত বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, দারাজকে দিয়ে আলিবাবা হাংরিনাকিকে নিয়ে ফুড ডেলিভারি ব্যবসায় আসলে মাত্র সম্প্রসারণ হতে থাকা এ খাত আরও প্রতিযোগিতার মধ্যে পড়বে।

(সূত্র: টেকশহর)