জীবন নামক এক খোয়াড়ে

বিজয়বাংলা ডেস্ক
প্রকাশিত ১০, জুলাই, ২০২১, শনিবার
<strong>জীবন নামক এক খোয়াড়ে</strong>

কলমেঃ আজাদ মাহবুবুল।

পুরনো বইয়ের পৃষ্ঠা থেকে ঝাপসা হয়ে যাওয়া কালির মতো বেরিয়ে এসেছি।
আজ দীর্ঘ এক সময়ের পাল্লা হিসেব করে।
এই নগর, এই ঘড়ি, মাঝ রাত সব কিছু উল্টে যায়।

আমিও উল্টে থাকি, কাগজের নকশার মতো উৎসব বাড়ির দরজায়।
চৌকাঠের বাইরে এলোমেলো জুতোর পাশে আমার অদ্ভুত অপেক্ষা,
আমার নিঃশ্বাসে ধুলো জমে।
দাঁত চেপে ঠায় দাঁড়িয়ে থাকি। মরুর উটের দৃশ্য খুঁজি।
খুঁজতে খুঁজতে চোখ বুজি।

আমার ভেতর অন্য এক দৃষ্টি খুলে যায়,
আমি আর আকাশ দেখিনা,
তোমার বাগানবিলাস দেখিনা,
দেখি এক অন্ধকার আমাবস্যার মতো ভাতের থালা,
আমার ক্ষুধা নেই তারপরও হাতড়ে যাই।

সেই পুরনো পাল এখনো হাওয়ায় ভাসে,
সময় কত অল্পতেই বয়ে যায়।
বছর যায়, আমি যাই, আমার অপেক্ষার তীরে পলি জমে।

আমি ঠাঁয় দাঁড়িয়ে এক বৃক্ষের মতো
গায়ে জমাই পরগাছা, জীবন নামক এক খোয়াড়ে।

শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন
  • 16
    Shares